বৃহস্পতিবার রাত ৯:৪৫, ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ২১শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং
প্রতিবেদন
ওয়াজ-মাহ‌ফিলগুলো এখন মেলায় প‌রিণত: মুফতী জামালুদ্দীন ঘূর্ণিঝড় আম্ফান: এখনো পানিবন্দি ৩৬ হাজার মানুষ ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবে রিক্সা-ভ্যান শ্রমিকদের সংবাদ সম্মেলন: ৬ ডিসেম্বর অবস্থান কর্মসূচী নেশার রাজ্য বাংলাদেশ: আক্রান্ত যুবসমাজ ডাক্তার নেই: সরাইল উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্রে স্বাস্থ্যসেবা বন্ধ রিক্সা-ইজিবাইক লাইসেন্স দাবিতে উত্তাল ব্রাহ্মণবাড়িয়া: দাবি ৫দফা ‘আটাশ দফা’ নিয়ে দফাভিত্তিক ভার্চুয়াল আলোচনা বিতর্কিত মুফতি ফয়জুল্লার বিরুদ্ধে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সেই বিক্ষোভের ভিডিও ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অনিয়ম-দুর্নীতির ভয়াবহ চিত্র ‘আঁরা টোকাই ন’, সী-বিচের দুই খেটে-খাওয়া শিশু সামাজিক আন্দোলন নিয়ে তারা রাজনীতি করছে: তথ্যমন্ত্রী নোয়াখালীতে নারীকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন: বিক্ষুব্ধ সারাদেশ

পৌর মার্কেট ও কাচারী পুকুরপাড় ফুটপাতে ব্যবসা

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি

এই ফুটপাত নিয়ে চলছে প্রতিদিন কয়েক হাজার টাকার বাণিজ্য। হকারদের কাছ থেকে আদায় হচ্ছে টাকা। পৌর মার্কেট পাহারাদার গোকর্ণ ঘাট এলাকার তাহের মিয়ার সহযোগীতায় বছরের পর বছর ধরে চাঁদাবাজি করছেন ক্ষমতাসীন দলের প্রভাবশালী নেতার ছেলে সুমন নামে একজন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভা সংলগ্ন পৌর মার্কেট ও কাচারী পুকুর পাড় ফুটপাত দখল করে দীর্ঘদিন ধরে হকাররা তাদের পসরা সাজিয়ে ব্যবসা করছেন।

পৌর মার্কেটের সামনের হকাররা বাচ্চাদের পোশাক, বার্মিজ স্যান্ডেল ফুল-ফল, মুখরোচক খাবার বিক্রি করছেন। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়তে থাকে হকারদের দোকান। চলে বিকেল থেকে রাত অবধি। ফুটপাত ও ফুটপাতসংলগ্ন রাস্তার অংশ হকারদের দখলে চলে যাওয়ায় কোণঠাসা হয়ে পথ চলতে হয় সাধারণ পথচারীদের।

এই ফুটপাত নিয়ে চলছে প্রতিদিন কয়েক হাজার টাকার বাণিজ্য। হকারদের কাছ থেকে আদায় হচ্ছে টাকা। পৌর মার্কেট পাহারাদার গোকর্ণ ঘাট এলাকার তাহের মিয়ার সহযোগীতায় বছরের পর বছর ধরে চাঁদাবাজি করছেন ক্ষমতাসীন দলের প্রভাবশালী নেতার ছেলে সুমন নামে একজন। হকার সূত্র বলছে, ‘প্রতিদিন বিভিন্ন দোকানের পজিশন অনুযায়ী ১শ থেকে দুইশত টাকা পর্যন্ত চাঁদা দিতে হয়। চাঁদা না দিয়ে বসলে মালামাল রাস্তায় ফেলে দেওয়া হয়। হকারদের কাছ থেকে টাকাআদায় পৌর মার্কেট।

ফুটপাত দখল করে বসা হকারদের সাথে কথা বলে জানা যায়, পরিবারের আর্থিক অনটনের চাহিদা মেটাতে চাকরির জন্য বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে ঘুরেও কোনো চাকরি মিলছে না। এমনকি মার্কেটে দোকান রেখে ব্যবসা করার সামর্থ্য আমাদের নেই। যার কারণে সামান্য টাকা নিয়ে ফুটপাতে বসে ব্যবসা করতে হচ্ছে। যারা টাকার বিনিময়ে ফুটপাতে হকারদের বসিয়েছে তাদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা নিতে হবে।

ক্যাটাগরি: অপরাধ-দুর্নীতি,  ব্রাহ্মণবাড়িয়া,  শীর্ষ তিন

ট্যাগ:

Leave a Reply