শুক্রবার রাত ৪:১৩, ২০শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ. ৩রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
Advertisement
সর্বশেষ খবর:
১২৫ বছরের বৃদ্ধা: গিনেস বুকে নাম উঠানোর প্রসঙ্গ নিউক্লিয়ার রেডিয়েশন শোষণ করে সূর্যমুখী শেষ হল ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ভাষা সাহিত্য সাংবাদিকতা কোর্স মুফতি মুবারকুল্লাহকে আদ-দাঈর `লেখক সম্মাননা স্মারক` প্রদান মহামন্দার শঙ্কায় বিশ্বঅর্থনী‌তি: অচলায়ত‌নে বাংলা‌দেশ মুহুরীনির্ভর আদালত ন‍্যায়বিচারের প্রতিবন্ধক আমি কেন অনলাইনে শিক্ষা ও জ্ঞান বিতরণের বিরোধী: জাকির মাহদিন ‌তিতাস ট্রেনের দুর্নী‌তি-অব্যবস্থাপনা চর‌মে: যাত্রীভোগা‌ন্তি সীমাহীন বিএমএসএফ`র উ‌দ্যোগে ঢাকায় `জার্নালিস্ট শেল্টার হোম`: সব সাংবাদিকের জন্য উন্মুক্ত মুখের ভাষা বাংলা, অস্তিত্বের ভাষা নয়: জাকির মাহদিন ভারত‌কে ব‌লে‌ছি শেখ হাসিনাকে টিকিয়ে রাখতে যা যা করা দরকার সবই করুন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী অপ‌টিমাম আই‌টি‌ ব্রাহ্মণবা‌ড়িয়ায় শুরু হচ্ছে ফ্রিল্যা‌ন্সিং মাস্টার কোর্স

১২৫ বছরের বৃদ্ধা: গিনেস বুকে নাম উঠানোর প্রসঙ্গ

মানুষ সৃষ্টিকর্তার এক বিশেষ বা সর্বশ্রেষ্ঠ সৃষ্টি। তাই এই যুগে মানুষের এতদিন অনেকটা সুস্থভাবে বেঁচে থাকাটা অনেকের জন্যই চিন্তার খোরাক হতে পারে। তিনি যে ধর্ম বা বর্ণেরই হোন না কেন।

এই ম‌হিলার বয়স আনুমানিক ১২৫ বছর। বা‌ড়ি ব্রাহ্মণবা‌ড়িয়া শহ‌রের শিমরাইলকা‌ন্দি গ্রা‌মে। সম্ভবত বাংলা‌দে‌শে এর‌চে‌য়ে বে‌শি বয়‌সের কেউ জী‌বিত নেই। তাই গি‌নেস বু‌কে তার নাম উঠা‌নোর জন‌্য আ‌বেদন ও অন‌্যান‌্য প্রক্রিয়া অবলম্বন এবং সহ‌যো‌গিতা করার ম‌তো কেউ থাক‌লে যোগাযোগের অনুরোধ করা হয়েছে। বি‌শেষ ক‌রে অতী‌তে গি‌নেস বু‌কে নাম উ‌ঠি‌য়ে‌ছেন এমন কেউ হ‌লে ভা‌লো হয়।

এ প্রসঙ্গে জাকির মাহদিন বলেন, “বয়সটা প্রমাণ করা একটু কষ্টকর হ‌বে। কারণ তখনকার বি‌শেষ কো‌নো ফাইল বা রেকর্ড নেই। ত‌বে স্থানীয়‌ মুরব্বী‌দের সাক্ষ‌্য, উনার স্বামী, বি‌য়ের বয়স ও সন্তান‌দের বয়‌সের ভি‌ত্তি‌তে খুব সহজেই করা যাবে। এছাড়া অন‌্যান‌্য কিছু প্রমাণও যোগাড় করা যা‌বে। এ‌ক্ষে‌ত্রে আ‌মি স‌র্বোচ্চ সহ‌যো‌গিতা ক‌রব। কিন্তু বি‌ভিন্ন কার‌ণে মূল কাজটা এ‌গি‌য়ে নেয়া আমার প‌ক্ষে সম্ভব নয়।”

এক সকালে তার হাতে একজন শিশুর মাধ্যমে ‘ন‌ভেম্বর-‌ডি‌সেম্ব‌র ২০২২’ এর অনুদানের টাকা তুলে দেয়া হয়

এদিকে বিভিন্ন মাধ্যমে জানা যায়, বিশেষ একটি স্বাস্থ্য পরীক্ষার মাধ্যমে বর্তমানে খুব সহজেই মানুষের সঠিক বয়স বের করা যায়। সুতরাং কোনো বিশেষ ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান এগিয়ে এলে অতি সহজেই বিষয়টির একটি সুরাহা হতে পারে। মানুষ সৃষ্টিকর্তার এক বিশেষ বা সর্বশ্রেষ্ঠ সৃষ্টি। তাই এই যুগে মানুষের এতদিন অনেকটা সুস্থভাবে বেঁচে থাকাটা অনেকের জন্যই চিন্তার খোরাক হতে পারে। তিনি যে ধর্ম বা বর্ণেরই হোন না কেন।

উ‌ল্লেখ‌্য, তাকে নি‌য়ে গত প্রায় চার বছর আগে দেশ দর্শনে প্রথ‌মে প্রতি‌বেদন ক‌রে‌ছি‌লেন জনাব খায়রুল আকরাম খান। এর ভিত্তিতে তাকে স্থানীয় সংসদ সদস্য জনাব র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী তার ব্যক্তিগত ফান্ড থেকে নিয়মিত একটি অনুদান দিয়ে থাকেন।

ক্যাটাগরি: প্রধান খবর,  বিশেষ প্রতিবেদন,  শীর্ষ তিন

ট্যাগ:

Leave a Reply